• শনিবার ১৯শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ ৪ঠা আশ্বিন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

    শিরোনাম

    স্বপ্নচাষ ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করতে ক্লিক করুন  

    রাজশাহীর আরডিএ মার্কেটের গেটে তালা, ভিতরে ক্রেতা-বিক্রেতার মেলা!

    স্বপ্নচাষ প্রতিবেদক, রাজশাহী

    ১৭ মে ২০২০ ২:২৬ অপরাহ্ণ

    রাজশাহীর আরডিএ মার্কেটের গেটে তালা, ভিতরে ক্রেতা-বিক্রেতার মেলা!

    করোনাভাইরাস প্রতিরোধে ও স্বাস্থ্য ঝুঁকি এড়াতে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করা হলেও তা অমান্য করে রাজশাহীর আরডি মার্কেটে খোলা রাখা হয়েছে দোকানপাট। সেখানে কেনাকেটা করতে ভিড় করছেন ক্রেতারা।

    শুক্রবার রাতে সভা করে ঈদ পর্যন্ত নগরীর সব দোকানপাট ও বিপনী-বিতান বন্ধের সিদ্ধান্ত গ্রহণের পরদিন শনিবার সকাল থেকেই এ কাণ্ড ঘটান আরডিএ মার্কেটের ব্যবসায়ীরা।

    অবশ্য কৌশল করে মার্কেটের প্রধান গেটে তালা ঝুলিয়ে রাখা হয়েছে। তবে হাজারো বিকল্প গেট পুরো খুলে রেখে ব্যবসা করছেন ব্যবসায়ীরা। আর এতে সাই দিয়ে সেখানে ভিড় জমিয়েছেন সচেতন-অসচেতন হাজারো ক্রেতা। সকাল থেকে নগরীর বিশাল এ মার্কেটে ব্যাপক ভিড় লক্ষ্য করা গেছে। তবে সেখানে প্রশাসনের কোনো নজরদারি লক্ষ্য করা যায়নি।

    সরকারি নির্দেশনা অনুযায়ী স্বাস্থ্যবিধি মেনে দোকানপাট খোলার অনুমতি দেয়া হলেও রাজশাহীতে করোনা নিয়ন্ত্রণের জন্য শুক্রবার দোকানপাট বন্ধ রাখার নির্দেশ দেওয়া হয়। এতে বলা হয়, ঈদের আগ পর্যন্ত দোকানপাট খোলা যাবে না। কিন্তু সেই নির্দেশনা অমান্য করে শনিবার সকাল থেকেই রাজশাহী আরডিএ মার্কেটের দোকানপাট খুলতে শুরু করে।

    এরপর বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে ক্রেতাদের উপচে পড়া ভিড় লক্ষ্য করা যায় আরডিএ মার্কেটের ভিতরে কাপড়ের দোকানসহ বিভিন্ন দোকানপাটে। দোকানগুলোতে সামাজিক নিরাপত্তা দূরত্ব বজায় না রাখার পাশাপাশি হ্যান্ডস্যানিটাইজারসহ করোনা প্রতিরোধে কোনো রকম ব্যবস্থা গ্রহণ লক্ষ্য করা যায়নি।

    আরডিএ মার্কেটের এক ব্যবসায়ী দাবি করেন, দোকানপাট না খুললে তাদের ক্ষতি হবে এ কারণে তারা ঈদের আগে দোকানপাট খুলে ব্যবস্যা করছেন।

    রাজশাহীর পুঠিয়া থেকে আসা এক ক্রেতা বলেন, ঈদের কেনাকাটা করতে এসেছেন তিনি। চারঘাট থেকে আসা এক নারী ক্রেতা বলেন, দোকানগুলোতে হ্যান্ড স্যানিটাইজারের কোনো ব্যবস্থা নাই। এতে করে করোনা ছড়িয়ে পড়ার আশঙ্কা রয়েছে। বাজারে এসেছেন কেন জানতে চাইলে, সোজা উত্তর, ‘সামনে ঈদ তাই’।

    এর আগে শুক্রবার বিকেলে নগর ভবনে রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন ও রাজশাহী-২ আসনের সংসদ সদস্য ফজলে হোসেন বাদশার সঙ্গে ব্যবসায়ী নেতৃবৃন্দের এক বৈঠকে সম্মিলিতভাবে দোকানপাট বন্ধের সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হয়। এসময় মার্কেটের দোকান কর্মচারীদের সহায়তা প্রদানের বিষয়েও আলোচনা ও সিদ্ধান্ত গৃহীত হয়। তবে নগরীর সবচেয়ে বড় মার্কেট আরডিএ খুলে রাখা হয়েছে।

    রাজশাহী চেম্বার সভাপতি মণিরুজ্জামান মণি বলেন, আমরা সবাইকে সিদ্ধান্ত জানিয়ে দিয়েছি। ঈদের আগে সব দোকানপাট বন্ধ রাখার জন্য বলেছি। তাও অনেকে আদেশ অমান্য করছেন। ঝুঁকি নিয়ে দোকানপাট খুলছেন। তাদের নিয়ন্ত্রণের জন্য প্রশাসনের পদক্ষেপ দরকার বলে জানান তিনি।

    স্বপ্নচাষ/আরএস

    Facebook Comments

    বাংলাদেশ সময়: ২:২৬ অপরাহ্ণ | রবিবার, ১৭ মে ২০২০

    swapnochash24.com |

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
     
    ১০১১
    ১২১৩১৪১৫১৬১৭১৮
    ১৯২০২১২২২৩২৪২৫
    ২৬২৭২৮২৯৩০  

    সম্পাদক : এনায়েত করিম

    সম্পাদকীয় ও বাণিজ্যিক কার্যালয়: গুরুদাসপুর, নাটোর-৬৪৩০
    ফোন : ০১৫৫৮১৪৫৫২৪ email : swapnochash@gmail.com

    ©- 2020 স্বপ্নচাষ.কম কর্তৃক সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত।